Subscribe

পদাবলি

কবিতা
কোনো ভাষা নাই?
আছে, তবে তা না` জানাই?
বুঝলাম, আর কিছু বলার-নাই!


ট্রিনিটি
অঞ্জলি: জেন সাধকদের পদমূলে
নয়, নয় শুধু,
তিন তিন তিন।
ছয় তিন, নয়।
নয়-ছয় তিন`এ!

দরদ
ওরে বেদরদী, ফোন করে জিজ্ঞেস করো_
`কেমন আছো?`
জানো না, কেমন রেখেছো !

জোনাকি
স্বপ্নের গোরস্তানে,
তোমার ঘরের পথ দেখালো_
একঝাঁক জোনাকী।

বৃষ্টি
দেখো চেয়ে, আকাশের দিকে_
ভালোবাসার বৃষ্টিধারা কেমন ঝরে পড়ছে,
তোমারই জন্যে।
সবটা ভিজিয়ে নাও।
দেখো, অন্তরটুকু যেন বাদ না যায়!

নিষ্ঠুরতমা সই
কে জানতো, একদিন তোমাকেও
অপ্রিয় কথামালায়_
ডুবিয়ে মারবো!

বই
প্রিয় লেখকের নাম দেখেই
দুই মলাটকে বগলে ঠাঁই দিলে?
`ভাঁজ খুলে দেখ ব্যাটা_
ভিতরে আদৌ কিছু তোর জন্যে
লিখা আছে কি না!`

স্পর্শ
উৎসর্গ : তোমাকে
ধ`রে না ঘুমালে ভূতে ধরবে_
এই ভয়ে পাঁচরাত জেগে আছি।
কেনো?
আরে, সেই কথাতো বললাম এখনি;
ধরার মতো কাউকে পাই নাই, তাই ব`লে!

পিতা-পুত্র
আযান পড়লে, বাজান ডাকেন_
`উঠ বাপধন, চল যাই মসজিদে;
তোর বাপ আছে নানান বিপদে ও আপদে!`

Copyright © 2019 All right ® reserverd by Nurul Alam Atique Art: Sabyasachi Mistry, Design: Rainy, Arrangement: Nahidur Rahim Chowdhury Ananda, Developed by eMythMakers.com